উচ্চ রক্তচাপের কারনে চোখের রক্তক্ষরণ হতে পারে — ভালো থাকুন

উচ্চ রক্তচাপের কারনে চোখের রক্তক্ষরণ হতে পারে

দুসপ্তাহ ধরে ডান চোখে ঝাপসা দেখেন। মাঝখানে একটা স্পটের মতো মনে হয়। স্পটটা যাচ্ছে না। প্রেসার, ডায়াবেটিস কখনো পরীক্ষা করে দেখেননি। চোখ পরীক্ষা করে যতটুকু বোঝা গেল, ডান চোখে রক্তক্ষরণ হয়েছে। রক্তচাপ ও রক্তে সুগার টেস্ট করে দেখা গেল, তার হাইপারটেনশন ও ডায়াবেটিস দুটোই রয়েছে। এ ধরনের রোগীর ক্ষেত্রে চোখের কিছু পরীক্ষা, যেমনÑ বি-স্কেন আল্ট্রাসনোগ্রাম, এনজিওগ্রাম, ওসিটি করলে সহজেই রোগটি ধরা যায় এবং চিকিৎসা দিতে সুবিধা হয়। রোগীর অবস্থা আঁচ করতে পেরে বললাম, কেবল বি-স্কেনটুকু করতে। রোগী অপারগতা প্রকাশ করলে ঢাকায় জাতীয় চক্ষুবিজ্ঞান প্রতিষ্ঠান ও হাসপাতালে চিকিৎসা নিতে উৎসাহিত করতে চেষ্টা করলাম। ওখানে কম খরচে পরীক্ষা-নিরীক্ষা এবং চিকিৎসা সম্ভব। রোগী তাতেও অপারগ। অবশেষে সাময়িক চিকিৎসা দিয়ে পরবর্তী ফলোআপে আসতে বলে রোগীকে বিদায় জানালাম।

চোখে রক্তক্ষরণের কারণ : আঘাতজনিত কারণ, উচ্চ রক্তচাপ বা হাইপারটেনশন, ডায়াবেটিস, রক্তশূন্যতা, লিউকেমিয়া, মেকুলার ডিজেনারেশন ইত্যাদি কারণে চোখে রক্তক্ষরণ ঘটে। এসব ক্ষেত্রে দৃষ্টি হঠাৎ ঝাপসা হয়ে যায়, বিশেষ করে এক চোখে। চোখ কিছুটা ভার ভার মনে হয়। চোখ পরীক্ষা করে রক্তক্ষরণের আলামত পেলে অবশ্যই ব্লাড প্রেসার, ডায়াবেটিস চেক করতে হবে। রক্তে কোলেস্টেরলের মাত্রা দেখে নিতে হবে। চোখের বিশেষ পরীক্ষার প্রয়োজন হলে বি-স্কেন, ওসিটি ও চোখের এনজিওগ্রাম করাতে হবে।

চিকিৎসা : রক্তক্ষরণের চিকিৎসা একটি জটিল প্রক্রিয়া। প্রথমে ওষুধ দিয়ে চিকিৎসা শুরু করে একটা নির্দিষ্ট সময়, যেমনÑ তিন মাসের মতো রোগীকে ফলোআপে রাখতে হয়। অনেক সময় চোখে ইনজেকশন (এভাস্টিন জাতীয়) দেওয়ার প্রয়োজন হয়। এ ধরনের চিকিৎসায় ভালো ফল পাওয়া যায়। পরবর্তীকালে লেজার দেওয়ার প্রয়োজন দেখা দিতে পারে। এরপরও কখনো কখনো প্রত্যাশিত ফল পাওয়া না গেলে অপারেশনের প্রয়োজন দেখা দেয়। এত কিছুর পর বেশিরভাগ ক্ষেত্রে রোগী ভালো হয়ে যায়। তবে ভবিষ্যতে আবারও রক্তক্ষরণের ঝুঁকি থেকে যায়। এ ছাড়াও কারণগুলো বিদ্যমান থাকলে তার চিকিৎসাও চালিয়ে যেতে হবে।

প্রতিরোধে করণীয় : উচ্চ রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণ, ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রণ, অত্যধিক টেনশন নিয়ে কাজ না করা, প্রয়োজনীয় ঘুম নিশ্চিত করা। পরিবারের কারো কোলেস্টেরলের সমস্যা থাকলে বা পরীক্ষায় কোলেস্টেরল বেশি পাওয়া গেলে তৈলাক্ত খাবারের ব্যাপারে সাবধানতা অবলম্বন করা। ধূমপান ও মদ্যপান পরিহার করা। সুশৃঙ্খল জীবনযাপন করা।

ROOT

করোনার ৩ নতুন উপসর্গ হচ্ছে সর্দি, বমিভাব আর ডায়রিয়া

যুক্তরাষ্ট্রের রোগ নিয়ন্ত্রণ ও প্রতিরোধ সংস্থা (সিডিসি) করোনাভা্রাসের নতুন তিনটি উপসর্গ চিহিৃত করেছে। নতুন ৩ উপসর্গ হচ্ছে সর্দি, বমিভাব আর ...
Read More

করোনায় শিশুরোগ বিশেষজ্ঞ ডা. আসাদুজ্জামানের মৃত্যু

করোনায় আক্রান্ত হয়ে মহাখালীর জাতীয় ক্যানসার গবেষণা ইনস্টিটিউট ও হাসপাতালের শিশুরোগ বিশেষজ্ঞ ডা. আসাদুজ্জামান মারা গেছেন। ...
Read More

করোনা উপসর্গ নিয়ে যুবকের মৃত্যু

গাজীপুরের শ্রীপুরে করোনা উপসর্গ নিয়ে ফিরোজ আল-মামুন (৪০) নামে এক যুবকের মৃত্যু হয়েছে। ফিরোজ উপজেলার মাওনা ইউনিয়নের মাওনা গ্রামের মৃত ...
Read More

অতিরিক্ত অর্থে মিলছে অক্সিজেন

রাজশাহীতে প্রতিদিনই বাড়ছে করোনা আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা। আর এর চাইতেও বেশি আছে করোনা উপসর্গ নিয়ে নতুন রোগীর সংখ্যা। এ ধরনের ...
Read More

উপসর্গে ওসমানী মেডিকেলের অধ্যাপক ডা. গোপাল শংকরের মৃত্যু

সিলেটের এম এ জি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মানসিক রোগ বিভাগের সাবেক বিভাগীয় প্রধান অধ্যাপক ডা. গোপাল শংকর দে করোনাভাইরাসের ...
Read More

চীনের ভ্যাকসিনের ট্রায়াল হতে পারে বাংলাদেশে

করোনাভাইরাস নির্মূলে চীন আবিষ্কৃত সম্ভাব্য ভ্যাকসিনের ট্রায়াল বাংলাদেশে হতে পারে বলে জানিয়েছেন স্বাস্থ্য অধিদফতরের মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. আবুল কালাম আজাদ। ...
Read More

ক‌রোনায় কেন্দ্রীয় ব্যাংকের উপদেষ্টার মৃত্যু

করোনাভাইরাসে (কোভিড-১৯) আক্রান্ত হয়ে বাংলাদেশ ব্যাংকের চেঞ্জ ম্যানেজমেন্ট উপদেষ্টা আল্লাহ মালিক কাজেমী মারা গেছেন। শুক্রবার (২৬ জুন) বিকেলে এভার কেয়ার ...
Read More

রাজশাহীতে করোনা উপসর্গ নিয়ে দু’জনের মৃত্যু,

প্রাণঘাতী করোনায় আক্রান্ত হয়ে রাজশাহীতে মারা গেছেন একজন। আরেকজনের মৃত্যু হয়েছে করোনার উপসর্গ নিয়ে। চিকিৎসাধীন অবস্থায় শুক্রবার সকালে রাজশাহী মেডিকেল ...
Read More

করোনায় মার্কেন্টাইল ব্যাংকের ভাইস চেয়ারম্যানের মৃত্যু

করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন বেসরকারি মার্কেন্টাইল ব্যাংকের উদ্যোক্তা পরিচালক ও ভাইস চেয়ারম্যান মোহাম্মদ সেলিম (ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি ...
Read More
%d bloggers like this: