মাদকাসক্তি নিয়ন্ত্রণ করার উপায় — ভালো থাকুন

মাদকাসক্তি নিয়ন্ত্রণ করার উপায়

বর্তমান বাংলাদেশ এর প্রেক্ষাপটে, আগের থেকে এখন মেয়েদের মধ্যে মাদক গ্রহণের প্রবণতা বেশ ব্যাপক হাড়ে বেড়ে গিয়েছে। আগে ছেলেদের সংখ্যা যেমন বেশি ছিল তেমনি এখনও বেশি কিন্তু সেই সাথে, দিন যত সামনে যাচ্ছে ততো যেন মেয়েরাও পাল্লা দিয়ে মাদকের দিকে ঝুঁকছে। এর মধ্যে রাজধানীর নামি-দামী স্কুল কলেজের ছাত্রী থেকে শুরু করে যাত্রাবাড়ী, ডেমরা, টিকাটুলি এসব জায়গার বস্তিতে থাকা মেয়েরাও রয়েছে। 

বর্তমানে আমাদের সমাজে আধুনিকতার নামে অনেক পরিবারে নেমে এসেছে দায়িত্বহীনতা। বাবা-মায়েরা আধুনিকতার নামে মেয়েদেরকে গড্ডালিকা প্রবাহে চলার সুযোগ দিচ্ছে। মাদকাসক্ত নারীর দুই-তৃতীয়াংশই স্কুল-কলেজ বা বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রী। এক্ষেত্রে ইংলিশ মিডিয়াম স্কুল ও বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রীর সংখ্যাই বেশি। কিন্তু, কেন নারীরা এসব দিকে অগ্রসর হচ্ছে, কেন তারাও পুরুষদের সাথে তাল মিলিয়ে চলছে, এমন আরও হাজার কারণ আছে যেগুলো সম্বন্ধে আমরা অজ্ঞ অথবা জেনেশুনেও না জানার ভান করে চলি।

মাদকাসক্তি নিয়ন্ত্রণ করার উপায়

মন থেকে প্রতিজ্ঞা করুন আর মাদক গ্রহণ করবেন না | সবসময় কাজের মোধ্য নিজেকে ব্যস্ত রাখুন | বেশি বেশি ঘুমান | নিয়মিত মেডিটিশন ও ব্যায়াম করুন |

১) যে কোন রকমের মাদকদ্রব্য থেকে দূরে থাকতে হবে।

২) ডাক্তারের পরামর্শ ছাড়া যেকোন ওষুধ সেবন বন্ধ রাখতে হবে।

৩) আসক্ত ব্যক্তি/ আসক্ত বন্ধুদের কাছ থেকে দূরে থাকতে হবে। (যতড়্গণ পর্যন্ত না চিকিৎসা গ্রহণ করে তারা নিজেদেরকে নিয়ন্ত্রণ করে নতুন জীবন গ্রহণ শুরু করেছে।

৪) যখনই নেশার ইচ্ছা হবে/ নেশার কথা মনে হবে তখন যেন আসক্ত ব্যক্তি নেশা জীবনের অসহায় অবস্থাগুলোর কথা মনে করে।

৫) মিথ্যে বলার অভ্যাস দূর করতে হবে।

৬) হঠাৎ কোন অনুষ্ঠানে / যেকোন পরিস্থিতিতে বন্ধুরা ড্রাগ/ রাসায়নিক দ্রব্যগ্রহণ করতে বললে “না” বলা শিখতে হবে। (কারণ আসক্তরা মাদকদ্রব্য পেলে সহজে “না” বলতে পারে না এটা অনেকটা পাহাড় থেকে পড়ন্ত্য পাথরকে ঠেকানো যেমন কষ্টকর তেমনি চিকিৎসার পর একবার মাদকদ্রব্য ব্যবহার শুরম্ন করলে তার নিয়ন্ত্রণও কষ্টকর)।

৭) মানসিকভাবে ও শারীরিকভাবে পুনরায় ভারসাম্য অবস্থায় ফিরিয়ে আনতে অভ্যাসের প্রয়োজন যা অল্পদিনে সম্ভব নয়।

৮) মস্তিষ্কের বিচার করার ক্ষমতা নষ্ট হয়ে যায় এটিকে পুনরায় স্থিতিশীল অবস্থায় নিয়ে আনসে নৈতিক শিক্ষা, ধর্মীয় মূল্যবোধ ও পারিবারিক বন্ধন শক্ত হতে হবে।

৯) মাদকাসক্তি সম্বন্ধে সঠিক তথ্য জানা থাকতে হবে।

১০) জীবনের প্রতি আগ্রহ বাড়াতে হবে।

১১) যে কোন রাসায়নিক দ্রব্য ব্যবহার করার কৌতূহল কমাতে হবে। কারণ মাদকাসক্তির প্রধান কারণ হিসেবে এখনো কৌতূহল ও দুঃসাহসিক মনোভাবকে বিবেচনা করা হয় (বিভিন্ন গবেষণা থেকে প্রাপ্ত তথ্য থেকে)।

১২) সিগারেট যে এক ধরনের মারাত্মক নেশা, সিগারেটের মধ্যেও যে অন্যান্য নেশা জাতীয় দ্রব্য মেশানো থাকে সে ধারণা করতে হবে।

১৩) জীবনের স্বাভাবিক অবস্থাকে মেনে নেয়ার অভ্যেস গড়ে তুলতে হবে। নিজের পরিবার এবং পরিবেশ থেকে আনন্দ পেতে শিখতে হবে।

১৪) নিজের আবেগ দমন ক্ষমতা বাড়াতে হবে। আবেগের প্রভাবই নেশার দিকে নিয়ে যায়।

১৫) মাদকদ্রব্য সম্পর্কে ভুলধারণাগুলো শোধরাতে হবে।

১৬) বাস্তবে পাওয়া দুঃসাধ্য এমন কিছু চাওয়া থেকে বিরত থাকতে হবে। নতুবা ব্যক্তি অন্যান্য সহজ, সুন্দর ও স্বাভাবিক জীবনের প্রতি আগ্রহ হারিয়ে ফেলবে অথবা সে জীবনের অন্যান্য দিকগুলো অবহেলা করতে শুরু করবে।

১৭) ব্যক্তির প্রতিদিনের সাধারণ দায়িত্বগুলি মেনে চলতে অভ্যস্ত হতে হবে। নিজের আগ্রহ হল সবকিছু।

ROOT

করোনার ৩ নতুন উপসর্গ হচ্ছে সর্দি, বমিভাব আর ডায়রিয়া

যুক্তরাষ্ট্রের রোগ নিয়ন্ত্রণ ও প্রতিরোধ সংস্থা (সিডিসি) করোনাভা্রাসের নতুন তিনটি উপসর্গ চিহিৃত করেছে। নতুন ৩ উপসর্গ হচ্ছে সর্দি, বমিভাব আর ...
Read More

করোনায় শিশুরোগ বিশেষজ্ঞ ডা. আসাদুজ্জামানের মৃত্যু

করোনায় আক্রান্ত হয়ে মহাখালীর জাতীয় ক্যানসার গবেষণা ইনস্টিটিউট ও হাসপাতালের শিশুরোগ বিশেষজ্ঞ ডা. আসাদুজ্জামান মারা গেছেন। ...
Read More

করোনা উপসর্গ নিয়ে যুবকের মৃত্যু

গাজীপুরের শ্রীপুরে করোনা উপসর্গ নিয়ে ফিরোজ আল-মামুন (৪০) নামে এক যুবকের মৃত্যু হয়েছে। ফিরোজ উপজেলার মাওনা ইউনিয়নের মাওনা গ্রামের মৃত ...
Read More

অতিরিক্ত অর্থে মিলছে অক্সিজেন

রাজশাহীতে প্রতিদিনই বাড়ছে করোনা আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা। আর এর চাইতেও বেশি আছে করোনা উপসর্গ নিয়ে নতুন রোগীর সংখ্যা। এ ধরনের ...
Read More

উপসর্গে ওসমানী মেডিকেলের অধ্যাপক ডা. গোপাল শংকরের মৃত্যু

সিলেটের এম এ জি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মানসিক রোগ বিভাগের সাবেক বিভাগীয় প্রধান অধ্যাপক ডা. গোপাল শংকর দে করোনাভাইরাসের ...
Read More

চীনের ভ্যাকসিনের ট্রায়াল হতে পারে বাংলাদেশে

করোনাভাইরাস নির্মূলে চীন আবিষ্কৃত সম্ভাব্য ভ্যাকসিনের ট্রায়াল বাংলাদেশে হতে পারে বলে জানিয়েছেন স্বাস্থ্য অধিদফতরের মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. আবুল কালাম আজাদ। ...
Read More

ক‌রোনায় কেন্দ্রীয় ব্যাংকের উপদেষ্টার মৃত্যু

করোনাভাইরাসে (কোভিড-১৯) আক্রান্ত হয়ে বাংলাদেশ ব্যাংকের চেঞ্জ ম্যানেজমেন্ট উপদেষ্টা আল্লাহ মালিক কাজেমী মারা গেছেন। শুক্রবার (২৬ জুন) বিকেলে এভার কেয়ার ...
Read More

রাজশাহীতে করোনা উপসর্গ নিয়ে দু’জনের মৃত্যু,

প্রাণঘাতী করোনায় আক্রান্ত হয়ে রাজশাহীতে মারা গেছেন একজন। আরেকজনের মৃত্যু হয়েছে করোনার উপসর্গ নিয়ে। চিকিৎসাধীন অবস্থায় শুক্রবার সকালে রাজশাহী মেডিকেল ...
Read More

করোনায় মার্কেন্টাইল ব্যাংকের ভাইস চেয়ারম্যানের মৃত্যু

করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন বেসরকারি মার্কেন্টাইল ব্যাংকের উদ্যোক্তা পরিচালক ও ভাইস চেয়ারম্যান মোহাম্মদ সেলিম (ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি ...
Read More
%d bloggers like this: